বিষয়: চাপ/ধকল

আমি মধ্যবিত্ত পরিবারের সন্তান!আমি ছোটোবেলায় বাবাকে হারিয়েছি।আম্মা অসুস্হ থাকার দরুণ আমি ফুফু আর বড় বোনের কাছে বড় হই।তাই।আমার ১০ বছর পর্যন্ত আম্মার সাথে আমার যোগাযোগ একদম ই ভালো ছিলোনা।বছরে দু বার দেখা হতো!তারপর যখনই আমি আম্মাকে ফিল করতে শুরু তখন থেকেই আমি আম্মার কাছে যাওয়ার জন্য প্রায় স্কুল চুরি করে বাড়িতে যেতাম।কিন্তু আম্মা কেনো জানি আমাকে সহ্য করতেন না।খুব মারতেন।তারপর আমার বড় আপা ও খুব মারত।একদম ক্লাস ওয়ান থেকেই।আপার কিছু মানসিক সমস্যা ছিলো।তাই যখনই কোনো রাগ হতো আমাাকে মারতো।সবার সামনে।প্রতিবেশী আমার বন্ধু আত্মীয়। সবার সামনেই।আমার খুব খারাপ লাগতো।কারন তারা আমাকে নিয়ে হাসাহাসি করতো আমাকে দেখার পর!!সবাই জানতো আমাকে খুব মারতো আমাার বোন।তারপর থেকেই আমার আত্মহননের ঝোঁক চলে আসে!আমি প্রচুর হাত কাটতে শুরু করি।আর আমার বোন ও খুব মারতো।মাঝেমাঝে আমি বেহুঁশ হয়ে যেতাম।কিন্তু জেগে উঠার পর আমি কাচ কিংবা ব্লেড দিয়ে হাতে গভীরভাবে খুব কেটে দিতাম!এটা আমার নেশা হয়ে গেছে।যখনই কোনো রাগ হয় আমি হাত কাটতে শুরু করি!তারপর যখন একটু বড় হই নানান ছেলেরা আমাকে অফার করতো।আমি বাসায় এগুলো বললে উল্টা ও রেগে যেতো।আমার দুলাভাইও মারতো খুব।এরপর আমার সাথে কিছু ছেলের বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক হয়।তারা আমাকে পিজিক্যালি চাইতো তা আমি বুঝতামনা।মানুষ আমাকে নিয়ে খুব বাজে বাজে কথা বলতো।কেনো বলতো জানিনা।অথচ আমি ওরকম কিছু করতামই না।আমি অনেক কষ্টে পড়াশোনা টা ধরে রেখেছি।এসএসসিতে ভালো রেজাল্ট করার পর সবার অনুরোধে আমি শহরে এসে ভর্তি হই।এরপর আমার সাথে খুব বাজে সেক্সুয়ালী ব্যাপারগুলো ঘটে।আমার সেজো দুলাভাই আমার সাথে এমন করতে চাইতেন।আমার খুব খারাপ লাগে।আমি মেসে উঠে যায়।আর তারপর একটা ছেলের সাথে সম্পর্ক হয় আমার।সেও আমাকে সেক্সুয়ালী চাইতো।আমি এটা মানতে পারিনা তারা কেনো আমাকে এমনভাবে চাইবে।আমাী শরীর খুব খারাপ হয়ে যায়।পড়াশোনা কিছুই হয়নি।আবার কলেজের দুবছরে আমি মেসে ছিলাম বেশি।এসময়টাতে আমার পরিবারের কেউ আমার কোনোই খোজ নেয়নি!আমার শরীরের অবনতির জন্য আমি পড়তে পারিনি।ফলে এইচএসসি পরীক্ষার আগে আমার বোনেরা আমার বিয়ে ঠিক করে!আমি পালিয়ে যায়।আমার ইচ্ছা আরো পড়ার!আজ ১বছর পর আমি বাড়িতে আসছি। এখনো ওরা আমাকে বিয়ে দিতে চায়।কিন্তু আমি এখনো একজনকে ভালোবাসি।আবার আমাকেও একজন ভালোবাসে। আমাকে বিয়েও করতে চায়।আমি যাকে ভালোবাসি ও এখনো স্টুডেন্ট!হিন্দু।আমার মনে হয় ও আমাকে ভালোবাসে।আর অন্য ছেলেটা মুসলিম। সে নিসন্দেহে আমাকে ভালোবাসে। আমার পরিবার ক্রমাগত চাপ দিচ্ছে।খুব বাজে বিহেভ করছে।আমি বুঝতেছিনা আমার কি করা উচিত!!আমার শরীর কয়েকদিন পরপর খুব খারাপ হয়ে যায়। আমি হাসপাতালেও ভর্তি হই ডাঃ বলে আমার মানসিক সমস্যা আছে।আমার পরিবারও তাই মনে করে।তাদের বিহেভ খুব জঘন্য।আমার ওদের একদম ই সহ্য হয়না।আমার বন্ধু টন্ধু নেই।হলেও আমার আপার জন্য কেউ মেশেনা আমার সাথে।কোথাও বেড়াতে দেয়না।আমি পাগল হয়ে যাচ্ছি।চেনাজানা কারো সামনে যেতে লজ্জা পাই।তাদের দেখলে আমার মনে পড়ে এ লোকটা আমাকে মারতে দেখেছে।আমার মনে হয় তারা আমার ব্যাপারে বাজে কিছু ভাবে।আমার অস্বস্তি লাগে। আমি পড়াশোনায় খুব ভালো।আরো পড়তে চাই।এখন কি করবো প্লিজ একটা উপায় দিন স্যার!!!

মহিলা, ১৯ বছর

শেয়ার করুন

Prof. Dr. Mahadeb Chandra Mandal

MBBS, MPhil, Emdr, Frsh
Specialist in Psychiatry

উত্তর দিয়েছেন

আপনার প্রশ্নের জন্য ধন্যবাদ।

আপনার সমস্যাগুলো দেখে আমরা বুঝতে পারছি যে আপনি বেশ বড় ধরণের সমস্যায় আছেন। আসলে আপনাকে ছোট বেলা থেকেই অনেক প্রতিকূল অবস্থার মধ্যে দিয়ে যেতে হয়েছে। আপনার পরিবারও আপনাকে কোনো সাপোর্ট দেয় নি। সমাজে মানুষের সাপোর্ট খুবই প্রয়োজন। কিন্তু যেহেতু আপনি এগুলো পাচ্ছেন না সেজন্য আপনার খুব দ্রুত একজন মনোরোগ বিশেষজ্ঞের শরণাপন্ন হওয়া প্রয়োজন এবং আপনার দীর্ঘমেয়াদি কাউন্সিলিং দরকার। যদি সম্ভব হয় একজন ঘনিষ্ট কাউকে সাথে নেওয়া প্রয়োজন।

আপনার যদি আর কোন প্রশ্ন থাকে তাহলে দয়া করে পুনরায় জিজ্ঞাসা করুন, অথবা ৭৮৯ নাম্বারে ডায়াল করে টনিক ডাক্তারের সাথে কথা বলুন।.


আপনি কি টনিকের আরো ফিচার দেখতে চান?
এখনই ফ্রি ট্রায়ালের জন্য সাইন আপ করুন!

ফ্রি প্রশ্ন জিজ্ঞাসা করুন


    বিঃদ্রঃ দয়া করে জরুরি অবস্থায় দ্রুত ডাক্তারের কাছে যান।

    আপনার কাঙ্খিত প্রশ্নোত্তর খুঁজে পাননি?

    ডাক্তারের সাথে কথা করুন
  • আপনার প্রশ্ন খুঁজে পাননি?
  • টনিক ফ্রি সাবস্ক্রাইব করুন

    আজই টনিকের সকল সাধারণ ফিচার উপভোগ করুন

    আপনার গ্রামীণফোন নাম্বারটি প্রদান করুন

    ০১৭ -

    Top